গাজীপুরে বঙ্গবন্ধুর ১০১তম জন্মদিনে ১০১ পাউন্ড কেক কেটে জন্মদিন পালন করলো যুবলীগ

Top News এক্সক্লুসিভ ঢাকা বিভাগ প্রধান খবর রাজনীতি শিরোনাম সারাদেশ

শেখ রমজান হাসান নূর

নিজস্ব প্রতিবেদক:

যায়যায় সময়.কম
শেখ মুজিবুর রহমান ১৯২০ সালের ১৭ মার্চ ফরিদপুরের গোপালগঞ্জ জেলার টুঙ্গিপাড়া গ্রামের শেখ লুৎফর রহমান এবং শেখ সায়েরা খাতুনের ছেলে। ৪ কন্যা এবং ২ পুত্র সন্তানের মধ্যে শেখ মুজিবুর রহমান ছিলেন তৃতীয়। মা-বাবা তাঁকে ‘খোকা’ বলে ডাকতেন। তবে সেই ‘খোকাই’ ধীরে ধীরে হয়ে উঠেছিলেন নির্যাতিত মানুষের ভরসাস্থল। হয়ে উঠেছিলেন সবুজ-শ্যামল বাঙলার  বঙ্গবন্ধু। জেল-জুলুম, অত্যাচার-নিপীড়নের শিকার মানুষের প্রতিনিধি হয়ে ডাক দিয়েছিলেন স্বাধীনতার। অত্যাচারিত মানুষকে মুক্তি দিয়েছেন। দিয়েছেন স্বাধীন দেশ।
মহান এই নেতার জন্মশত বার্ষিকীকে ঘিরে পালন করা হয়েছে বছরব্যাপী আয়োজন। আজ ১৭ মার্চ বঙ্গবন্ধুর জন্মবার্ষিকীতে থাকছে দেশব্যাপী নানা আয়োজন। জাতীয় কর্মসূচির পাশাপাশি স্থানীয়ভাবে বিভিন্ন সংগঠনের পক্ষ থেকে দিনটিতে নানা অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছে। এরই ধারাবাহিকতায়
বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ১০১ তম জন্মদিন উপলক্ষে গাজীপুরে ভাওয়ালগড়, পিরুজালী, মির্জাপুর ইউনিয়ন আওয়ামী যুবলীগের আয়োজনে ১০১ পাউন্ডের কেক কেটে দিবসটি পালন করা হয়েছে।
এতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন গাজীপুরের ৩ আসনের সাংসদ সদস্য মোহাম্মদ ইকবাল হোসেন সবুজ এমপি। এসময় যুবলীগের নেতা মোঃ রাসেল শেখের সঞ্চালনায় বক্তব্য রাখেন আওয়ামীলীগ নেতা লিটন মিয়া, হারুন অর রশীদ বি এস সি। গাজীপুর জয়দেবপুর থানা ওসি মোঃ মামুন আল রশীদ, যুবলীগ নেতা শহিদুল্লাহ সরদার, এরশাদ আকন্দসহ আওয়ামীলীগ,যুবলীগ ও অঙ্গ সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।পরে ১০১ পাউন্ডের কেক কেটে যুবলীগের নেতা কর্মিরা মুক্তিযোদ্ধা কলেজ মাঠ থেকে একটি র‍্যালি বের করে বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ করেন।